ভারতে আতশবাজি কারখানায় ভয়াবহ বিস্ফোরণ, নিহত ১৭

ভারতের পাঞ্জাবের গুরুদাসপুরে একটি আতশবাজি তৈরির কারখানায় ভয়াবহ বিস্ফেরণে এখনও পর্যন্ত ১৭ জনের প্রাণহানি ঘটেছে। আহতের সংখ্যা কমপক্ষে ১৫। বিস্ফোরণের তীব্রতায় তিনতলা বিশিষ্ট কারখানাটি সম্পূর্ণ ধ্বংস হয়ে গেছে। ফলে ওই ধ্বংসস্তুপের নিচে বহু মানুষ আটকে রয়েছে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

পাঞ্জাব পুলিশের আইজি (বর্ডার রেঞ্জ) এসপিএস পারমার জানান, ‘বুধবার বিকাল ৪ টার দিকে গুরুদাসপুর জেলার বাটালা এলাকায় এ বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। ’

পুলিশ সূত্রে খবর, বিস্ফোরণের ধাক্কায় কারখানার পার্শ্ববর্তী তিন থেকে চারটি বাড়িও সম্পূর্ণ ধ্বসে পড়েছে। এক কিলোমিটার দূরের অধিকাংশ বাড়িগুলোতেও জানালার কাঁচে চিড় ধরেছে।

বিস্ফোরণে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে একটি গাড়ি ও মোটরসাইকেল।
জানা গেছে, একটি বিয়ে বাড়ির অনুষ্ঠানে সরবরাহ করার জন্যই বাজিগুলো তৈরি করা হচ্ছিল। আগুন নেভাতে প্রায় ১২টি ফায়ারসার্ভিস কাজ করছে। এছাড়াও জাতীয় দুর্যোগ মোকাবেলা ও রাজ্য দুযোর্গ মোকাবেলা টিমের সদস্যরাও উদ্ধারকাজে হাত লাগিয়েছেন। ঘটনাস্থলে রয়েছেন জেলা প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারাও।

লাশগুলোকে ধ্বংসস্তুপ থেকে উদ্ধার করে বাটালা সিভিল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। আহতদের মধ্যে চারজনকে অমৃতসরের গুরু নানক দেব হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়েছে।
পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী ক্যাপ্টেন অমরিন্দর সিং দুর্ঘটনায় নিহতদের প্রতি শোক জ্ঞাপন করে জানান, ‘উদ্ধারকাজ চলছে। জেলার কালেক্টর ও সিনিয়র পুলিশ কর্মকর্তারা সেই উদ্ধারকাজ তদারকি করছেন। ’

নিহতদের প্রতি শোক জ্ঞাপন করেছেন গুরুদাসপুরের বিজেপি সাংসদ অভিনেতা সানি দেওল।

SHARE